হরিজন সম্প্রদায়ের বৈষম্য দূর করতে ধর্মীয় নেতৃবৃন্দ গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখতে পারে

আল আমিন হোসেন, রাজশাহী : বেসরকারী উন্নয়ন ও মানবাধিকার সংস্থা লেডিস অর্গানাইজেশন ফর সোসাল ওয়েলফেয়ার (লফস) এর আয়োজনে দাতা সংস্থা দি এশিয়া ফাউন্ডেশনের সহযোগিতায় হরিজন সম্প্রদায়ের ধর্মীয় স্বাধীনতা, শান্তি ও সম্প্রীতি স্থাপনে বাঁধা ও বৈষম্য নিরসনে এ্যাডভোকেসী প্রকল্প এর আওতায় ধর্মীয় প্রতিষ্ঠানের সাথে এ্যাডভোকেসি সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে।

বৃহস্পতিবার (৩ ফেব্রুয়ায়ী) বেলা ১১টায় নগরীর রানীবাজারস্থ এস.কে ফুড ওয়ার্ল্ড কনফারেন্স রুমে এ সভা অনুষ্ঠিত হয়।

এ্যাডভোকেসি সভায় অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন পবা উপজেলার ভাইস চেয়ারম্যান ওয়াজেদ আলী খান, দৈনিক সোনার দেশ পত্রিকার সম্পাদক আকবারুল হাসান মিল্লাত, রাজশাহী সিটি কর্পোরেশনের চীফ কমিউনিটি ডেভেলপমেন্ট অফিসার আজিজুর রহমান। এ্যাডভোকেসি সভার সভপিতত্ব করেন সংস্থার নির্বাহী পরিচালক শাহানাজ পারভীন।

এ্যাডভোকেসি সভায় ওয়াজেদ আলী খান বলেন, হরিজন সম্প্রদায়ের জনগোষ্ঠির ধর্মীয় স্বাধীনতা ও সম্প্রীতি স্থাপনে ধর্মীয় নের্তৃবৃন্দ গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করতে পারে। তিনি সকল সম্প্রদায়ের প্রতি মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর সু-দৃষ্টি রয়েছে বলে উল্লেখ করেন।

আকবারুল হাসান মিল্লাত বলেন হরিজনরা সমাজের অংশ। তারা দির্ঘদিন ধরে ধর্মীয় ও সামাজিক বৈষম্যর শিকার হয়ে আসছে। হরিজনরা আমাদের মতো মানুষ এই উপলব্ধি সকলের মনে জাগিয়ে তুলতে হবে। তিনি ধর্মীয় নের্তৃবৃন্দ সহ সকলকে হরিজনদের প্রতি ইতিবাচক মনোভাব গড়ে তোলার আহবান জানান।

সভায় আজিজুর রহমান হরিজন সম্প্রদায়কে নিয়ে লফস কর্মসূচী গ্রহন করায় ধন্যবাদ জ্ঞাপন করেন। হরিজন জনগোষ্ঠির শিশু সস্তানদের বিদ্যালয়মুখি করতে বিশেষ করে হরিজন সম্প্রদায়ের নারীদের শিক্ষার আওতায় আনতে কাজ করার পরামর্শ দেন। তিনি বলেন একটি সমাজ পরিবর্তনে শিক্ষার গুরুত্ব অপরিসীম।

মুক্ত আলোচনায় অংশ নেন ইসকন মন্দিরের শিক্ষক মুক্তি সাহা, ঘোড়ামারা কালী মন্দিরের পুরোহিত বিধান চক্রবর্তী, ষষ্টিতলা মন্দির কমিটির সদস্য শিপক চন্দ্র দে, শাহী মসজিদের মোয়াজ্জেম হাফেজ মোঃ রবিউল ইসলাম, রেশমপট্টি মসজিদেও মো: নুুরুল ইসলাম, বাসস এর সাংবাদিক ড. আইনাল হক, দৈনিক আমার সময় পত্রিকার রাজশাহী প্রতিনিধি আল আমিন হোসেন, হরিজন সম্প্রদায়ের সম্প্রীতি দলের সদস্য তিষা খাতুন, শ্রী দেবী ও নাইনা দাস।

এ্যাডভোকেসি সভার মূল প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন লফস এর প্রোগ্রাম এসিসটেন্ট সুলতানা রিজিয়া। সঞ্চালনা করেন প্রোগ্রাম এসিসটেন্ট মেহেদি হাসান। সভা স্বাস্থ্যবিধি মেনে সরকারী সিদ্ধান্ত অনুযায়ী অনুষ্ঠিত হয়। এসময় সকলের মাঝে করোনা উপকরণ হ্যান্ড ওয়াস বিতরণ করা হয়।