হত্যা মামলার যাবজ্জীবন সাজাপ্রাপ্ত আসামি ১০ বছর পর গ্রেফতার

মোঃ মিঠুন মিয়া(সিদ্ধিরগঞ্জ প্রতিনিধি,নারায়ণগঞ্জ): নারায়নগঞ্জের রূপগঞ্জের চাঞ্চল্যকর ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী শফিকুল ইসলাম হত্যা মামলার আসামী ১০ বছর পলাতক থাকার পর যাবজ্জীবন সাজাপ্রাপ্ত আসামী মো. কামাল হোসেন (৪৬) কে নারায়ণগঞ্জের রূপগঞ্জে গ্রেপ্তার করেছে র‌্যাব-১১’এর একটি আভিযানিক দল।

মামলার রায় হওয়ার পর সে আদালতে আত্মসমর্পণ না করে গা ঢাকা দিয়ে অভিনব কৌশল অবলম্বন করে বিগত প্রায় ১০ বছর যাবৎ এক স্থান হতে অন্য স্থানে পালিয়ে বেড়াচ্ছিল।

১৪ ফেব্রুয়ারি রাতে রূপগঞ্জের গাউছিয়া এলাকায় অভিযান পরিচালনা র‌্যাব তাকে গ্রেপ্তার করে। গ্রেপ্তারকৃত মো. কামাল হোসেন রূপগঞ্জ উপজেলার বানিয়াদি গ্রামের বশির উদ্দিনের ছেলে।

জানা যায়,  ২০০৫ সালে রূপগঞ্জের বানিয়াদি গ্রামের মফিজ উদ্দিন মেম্বারের ছেলে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী শফিকুল ইসলাম (২৪) কে কতিপয় দুর্বৃত্তরা গুলি করে হত্যা করে।

নৃশংস ও চাঞ্চল্যকর এ হত্যাকান্ডের ঘটনায় নিহত শফিকুল ইসলামের পিতা মফিজ উদ্দিন মেম্বার বাদী হয়ে মো. কামাল হোসেনসহ কয়েক জনের বিরুদ্ধে রূপগঞ্জ থানায় হত্যা মামলা দায়ের করেন।

এ মামলায় আদালত আসামী মো. কামাল হোসেনকে যাবজ্জীবন কারাদন্ড প্রদান করা হয়। মামলার রায় হওয়ার পর সে আদালতে আত্মসমর্পণ না করে গা ঢাকা দিয়ে অভিনব কৌশল অবলম্বন করে বিগত প্রায় ১০ বছর যাবৎ এক স্থান হতে অন্য স্থানে পালিয়ে বেড়াচ্ছিল।

র‌্যাব-১১’র এএসপি মো. রিজওয়ান সাঈদ জিকু জানান, গোয়েন্দা নজরদারী ও গোপন অনুসন্ধানের মাধ্যমে র‌্যাব-১১ এর একটি বিশেষ আভিযানিক দল মো. কামাল হোসেনকে সনাক্ত করে গ্রেপ্তার করে। তার বিরুদ্ধে আইনানুগ কার্যক্রম প্রক্রিয়াধীন।