সোনাইমুড়ি ইউপি’তে বিগত ও নতুন উন্নয়ন বার্তা প্রত্যেক ঘরে-ঘরে পৌঁছালে নৌকার দক্ষ ১০ মাঝি চেয়ারম্যান হবে

আবুল কালাম আজাদ (স্বাধীন),নোয়াখালী প্রতিনিধি: নোয়াখালী সোনাইমুড়ি উপজেলায় ইউনিয়ন পরিষদ ১০ টি। ১০ টি ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান পদে আওয়ামীলীগের সংসদীয় ও স্থানীয় সরকার জনপ্রতিনিধি মনোনয়ন বোর্ডের সভাপতি এবং বাংলাদেশ আওয়ামীলীগের সভাপতি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা সাবেক চেয়ারম্যান ৮ জন ও নতুন ২ জনকে মনোনয়ন দিয়েছে। ছবির ক্যাপশনে উপর বাম থেকে ১ নং জয়াগে জনাব শওকত আকবর পলাশ, ২ নং নদনা হারুন- অর- রশিদ, ৯ নং দেওটি নুরুল আমিন শাকিল, ৮ নং সোনাপুরে মোঃ আলমগীর হোসেন চৌধুরী, ৭ নং বজরায় মোঃ মিরন অর রশিদ এবং ক্যাপশন ছবির দ্বিতীয় সারির বাম দিক থেকে ৬ নং নাটেশরে মোঃ কবির হোসেন (খোকন), ৫ নং অম্বরনগর মোঃ আকতার হোসেন দুলু, ১০ নং আমিশাপাড়া আলমগীর হোসেন ভূঁইয়া। নতুন দলীয় মনোনয়ন পেলেন ৪ নং বারগাঁও ইউনিয়নে মোঃ সামছুল আলম ও ৩ নং চাষিরহাট আবদুর রহিম। সোনাইমুড়ি নির্বাচন অফিস সূত্রে বলা হয়েছে আগামী ৫ই জানুয়ারী ২০২১ ই তারিখে ৫ম ধাপের ইউনিয়ন পরিষদ ভোট অনুষ্ঠিত হবে। এদিকে আরও এক তথ্যসূত্রে, সোনাইমুড়ি ইউপি এলাকায় নতুন ২ নৌকা প্রার্থী দলিয় শৃঙ্খলা সহিত সাধারণ জনগণের সাথে সুসম্পর্ক বজায় রেখে এসেছে এবং দলীয় শৃঙ্খলার সহিত ইউনিয়ন পরিষদে জনগণকে সময় দেওয়া, সরকারি বিভিন্ন সাহায্য-সহযোগীতার সুষমবণ্টনের পাশা-পাশি নিজ উদ্যোগে মানুষের বিপদের সঙ্গি হয়েছেন বিধায় সাবেক অর্থাৎ বর্তমানে দায়িত্বরত চেয়ারম্যানগণের ৮ জনকেই পুনরায় নৌকা প্রতিক নিয়ে চেয়ারম্যান পদপ্রার্থী হিসেবে প্রতিদ্ব›িদ্বতায় করার সুযোগ দেওয়া হয়েছে। সামাজিক ব্যক্তিত্ববান জনপ্রতিনিধি হিসেবে ১০ জন নৌকার দক্ষ মাঝিরা বাংলাদেশ আওয়ামীলীগের ‘সমৃদ্ধির পথে এগিয়ে চলো’ এই

¯েøাগানের বিগত বছরগুলোর বিভিন্ন উন্নয়নের বার্তা এবং নতুন বিভিন্ন উন্নয়নমূলক কাজের সমন্বয়ে গঠিত উন্নয়নের প্রতিশ্রæতিমূলক নির্বাচনী ইশতেহার প্রত্যেক ঘরে ঘরে পৌঁছে দিতে পারলে নৌকার দক্ষ মাঝিরা চেয়ারম্যান হিসেবে বিজয় সুনিশ্চিত হবে বলে বিশ্লেষকগণ মনে করছে। বেশ কয়েকটি ইউনিয়ন পরিষদ এলাকায় স্থান পরিদর্শণে সচেতন মহল থেকে জানাগেছে, যদি স্বতন্ত্র প্রার্থীরা নির্বাচনে অংশগ্রহণ করছে সক্রিয়ভাবে । তার পরেও, কোন রকম বিশৃঙ্খলা ছাড়া নিয়মতান্ত্রিকভাবে দলিয় নেতা-কর্মী, সমর্থক ও সাধারণ ভোটারদের মাঝে বিচক্ষণ ব্যক্তি যারা এলাকার উন্নয়নে বিশ্বাস করে তাদেরকে নির্বাচনী প্রচার কাজে জড়িত করতে পারলে ১০ টি ইউপি’তে নৌকার দক্ষ মাঝিরা চেয়ারম্যান হিসেবে বিজয়ের মুকুট ঘরে নিতে পারবে অনায়াসে বিশ্লেষকগণ মনে করছে।