সিনহা হত্যা মামলার যুক্তিতর্ক শেষ, ৩১ জানুয়ারি হতে পারে রায় ঘোষণা 

দিদারুল আলম সিকদার,কক্সবাজার জেলা প্রতিনিধিঃ বহুল আলোচিত অবসর প্রাপ্ত মেজর সিনহা হত্যার ঘটনায় বড় বোন সারমিন শাহরিয়া বাদী হয়ে ওসি প্রদীপ কুমার দাশ সহ নয় জনকে আসামি করে একটি হত্যা মামলা দায়ের করেন। উক্ত মামলার ৬৫ জন স্বাক্ষীর অংশগ্রহণ এর পর সকল কার্যক্রম শেষে রায় ঘোষণার সম্ভাব্য তারিখ ধার্য্য করেছে আদালত।
বুধবার (১২ জানুয়ারি) সকালে শুরু হওয়া আসামী পক্ষের যুক্তিতর্ক শেষে কক্সবাজারের জেলা ও দায়রা জজ মোহাম্মদ ইসমাইল ৩১ জানুয়ারি রায়  ঘোষণার  দিন ধার্য্য করেন।
এর আগে মেজর সিনহা হত্যা মামলায় ৮৩ জন সাক্ষীর মধ্যে ৬৫ জনের সাক্ষ্য গ্রহণ পর সকল কার্যক্রম শেষ করে আদালত মামলার রায় ঘোষণার সম্ভাব্য দিন ধার্য্য করেছেন বলে জানান রাষ্ট্রপক্ষের আইনজীবী ফরিদুল আলম। এছাড়াও  উক্ত মামলায় প্রধান আসামী বরখাস্ত হওয়া টেকনাফ থানার ওসি প্রদীপ কুমার সহ সকল আসামীর সর্বোচ্চ শাস্তির আশা ব্যক্ত করেন তিনি।
উল্লেখ্য, মেজর সিনহার বোন শারমিন এর করা মামলার প্রেক্ষিতে ২০২০ সালের ১৩ ডিসেম্বর টেকনাফ থানার সাবেক ওসি প্রদীপ কুমার দাশসহ ১৫ জনকে অভিযুক্ত করে আদালতে অভিযোগপত্র দেন তদন্তকারী কর্মকর্তা ও র‍্যাব-১৫ কক্সবাজারের সিনিয়র সহকারী পুলিশ সুপার মো.খাইরুল ইসলাম।
উক্ত মামলার  আসামীরা হলেন- তৎকালীন টেকনাফ থানার ওসি প্রদীপ কুমার, বাহারছড়া পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ পরিদর্শক লিয়াকত আলি, টেকনাফ থানার এসআই দুলাল রক্ষিত, কনস্টেবল সাফানুর করিম, কামাল হোসেন, আব্দুল্লাহ আল মামুন, এএসআই লিটন মিয়া, এসআই টুটুল এবং কনস্টেবল মো. মোস্তফা। এর পর র‍্যাব ১৫ এর তদন্ত শেষে আরও ৭ জনকে অভিযুক্ত করে মামলার চার্জশিট জমা দেন তদন্তকারী কর্মকর্তা।