শিল্পমন্ত্রী নূরুল মজিদ মাহমুদ হুমায়ুন এমপি বলেছেন, বঙ্গবন্ধু, স্বাধীনতা ও বাংলাদেশ একসূত্রে গাঁথা

নিজস্ব প্রতিবেদক: তিনি আজ বাংলাদেশ ইস্পাত ও প্রকৌশল করপোরেশন (বিএসইসি) কর্তৃক আয়োজিত ‘বঙ্গবন্ধু ও স্বাধীনতা’ শীর্ষক আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে একথা বলেন। মুজিব শতবর্ষ ও বিজয়ের সুবর্ণ জয়ন্তী ২০২১ উপলক্ষ্যে শিল্পণালয়ের নিয়ন্ত্রণাধীন বিএসইসির প্রধান কার্যালয়ে এ আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়।
বিএসইসির চেয়ারম্যান জনাব মোঃ শহীদুল হক ভূঁঞা এর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত আলোচনা সভায় বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তৃতা করেন শিল্প প্রতিমন্ত্রী কামাল আহমেদ মজুমদার এমপি। অনুষ্ঠানে অন্যান্যের মধ্যে শিল্প মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব কাজী সাখাওয়াত হোসেন, বিএসইসি’র পরিচালক বাণিজ্যিক ও অতিরিক্ত সচিব জনাব মোঃ মহিউদ্দীন আহমদ, পরিচালক অর্থ ও যুগ্মসচিব জনাম মোঃ মনিরুল ইসলাম এবং বিএসইসি’র সচিব জনাব এ, কে, আনোয়ার মোর্শেদ বক্তৃতা করেন।
শিল্পমন্ত্রী বলেন, বিএসইসি’র আওতাধীন কারখানায় গতিশীলতা আনতে হবে। দেশি-বিদেশি উদ্যোক্তাদের সম্পৃক্ত করতে হবে। উন্নয়নে পরিকল্পনা আনতে হবে।
বিশেষ অতিথির বক্তৃতায় শিল্প প্রতিমন্ত্রী কামাল আহমেদ মজুমদার এমপি বলেন, বঙ্গবন্ধু এবং বাংলাদেশ এক অবিচ্ছেদ্য অঙ্গ। ১৯৭৫ সালে জাতির পিতাকে হত্যার মধ্য দিয়ে এদেশের মানুষের ভাগ্যের উন্নয়নে যে স্বপ্ন দেখেছিলেন তা স্থম্ভিত হয়ে যায়। তিনি আরো বলেন, অলাভজনক শিল্প কলকারখানাগুলোকে নতুন নতুন পরিকল্পনার মাধ্যমে লাভজনক প্রতিষ্ঠানে নিয়ে যেতে হবে। আজ স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তী ও মুজিববর্ষে  আমাদের অঙ্গীকার করতে হবে সকল দুর্নীতির উর্দ্ধে থেকে বিএসইসিকে আরো কিভাবে উন্নয়নের দিকে এগিয়ে নেয়া যায়।
আলোচনা সভার প্রাক্কালে মাননীয় শিল্প মন্ত্রী এবং প্রতিমন্ত্রী বিএসইসি প্রাঙ্গনে আয়োজিত ‘বঙ্গবন্ধু ও স্বাধীনতা’  শীর্ষক চিত্র প্রদর্শনী ঘুরে দেখেন।
‘বঙ্গবন্ধু ও স্বাধীনতা’ চিত্র প্রদর্শনীতে মুক্তিযুদ্ধের ঘটনা প্রবাহ ইতিহাস ভিত্তিক ছবির মাধ্যমে উপস্থাপন করা হয়েছে। দেশ-বিদেশের ফটোসাংবাদিকদের তোলা বঙ্গবন্ধু এবং মুক্তিযোদ্ধাদের দুর্লভ ছবি প্রদর্শনীতে স্থান পেয়েছে। নতুন প্রজন্মকে স্বাধীনতার প্রকৃত ইতিহাস এবং স্বাধীনতা ও বঙ্গবন্ধু অবিচ্ছেদ্য তা জানাতে এ আয়োজন করা হয়েছে।