বড়হাতিয়ায় সরকারের খাস জায়গায় অবৈধভাবে মুরগীর ফার্ম তৈরী করার কাজে ভ্রাম্যমান আদালতের অভিযান

মো. এরশাদ আলম, লোহাগাড়া (চট্টগ্রাম): চট্টগ্রামের লোহাগাড়া উপজেলার বড়হাতিয়া ইউনিয়নের ৮নং ওয়ার্ডের কুমিরাঘোনা

জঙ্গলী পীর পাড়ায় সরকারী খাস জায়গায় নির্মাণাধীন মুরগীর খামার বাড়ি বন্ধ করে দিয়েছে উপজেলা প্রশাসন।

বৃহস্পতিবার ২০ জানুয়ারী সকালে ভ্রাম্যমাণ আদালতে অভিযান চালিয়ে অবৈধভাবে নির্মাণাধীন মুরগীর খারামটি বন্ধ করে দেওয়া হয়।

ভ্রাম্যমান আদালতের অভিযান পরিচালনা করেন নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট তথা সহকারী কমিশনার(ভূমি) মোঃ মাসুদ রানা।

সূত্রে জানা গেছে, উপজেলার বড়হাতিয়া ইউনিয়নের জঙ্গলী পীর পাড়ায় সরকারের খাস জমিতে অবৈধভাবে একটি মুরগীর খামার নির্মাণ করছিল। এ বিষয়ে ওই এলাকার বাসিন্দা মুহাম্মদ ফেরদৌস উপজেলা সহকারী কমিশনার(ভূমি) কার্যালয়ে একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছেন।

অভিযোগটি পরিদর্শন করে দ্রুত ব্যবস্হা নিতে আধুনগর ভূমি অফিসের উপ-সহকারী কর্মকর্তা মুহাম্মদ এনামুল হককে দায়িত্ব দেন।তিনি পরিদর্শন করে ঘটনার সত্যতা নিয়ে সংশ্লিষ্ট উর্ধ্বতন কর্মকর্তা বরাবরে একটি প্রতিবেদন দাখিল করেন।

২০ জানুয়ারী সকালে উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) মোঃ মাসুদ রানার নেতৃত্বে নির্মাণাধীন খামার বাড়িটি লাল পতাকা টাঙ্গিয়ে বন্ধ ঘোষণা করে দেন।

নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট থানা উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) মোঃ মাসুদ রানা। বড়হাতিয়ার ফেরদৌস নামে একজন ব্যবসায়ী লিখিত অভিযোগ করলে তহসিলদার কে তদন্ত করার জন্য পাঠিয়েছিলাম।বড়হাতিয়ার জঙ্গলী পীর পাড়ায় যে ব্যক্তি মুরগীর খামার করছে সেটি সরকারী খাস জায়গা। অভিযোগের পরিপ্রেক্ষিতে আজকে সরকারী জায়গায় নির্মাণাধীন মুরগীর খামার ঘরটিতে লাল পতাকা টাঙিয়ে বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে বলেও তিনি জানান।