নড়াইল লোহাগড়া ব্রাহ্মণডাঙ্গা প্রতিপক্ষের হামলায় ৪জন আহত

নড়াইল প্রতিনিধিঃ নড়াইল লোহাগড়া উপজেলার নোওয়াগ্রাম ইউনিয়নের ব্রাহ্মণডাঙ্গা গ্রামে ইউপি নির্বাচন কে কেন্দ্র করে চা দোকনদার বদিয়ার মোল্লার স্ত্রী মরজিনা বেগম (৫০) মেয়ে সিমা বেগম (৩০) ছেলে মান্না ও প্রতিবেশী আবু মোল্লার ছেলে জামাল মোল্লা কে মারধর করার অভিযোগ পাওয়া গিয়াছে।
জানা গেছে ২৩ ডিসেম্বর বৃহস্পতিবার সন্ধ্যা সাড়ে পাঁচটার দিকে স্থানীয় সন্ত্রাসী বাহিনী রাজা মিয়ার ছেলে সাইফুর, নুৎফার মোল্লার ছেলে নাজির,হাসমত,লাদেন সহ তার বাহিনী চা দোকানদার বদিয়ার মোল্লার উপর আকর্ষিক হামলা চালায়।
এসময় দোকানের পিছনে বাড়িতে থাকা বদিয়ার মোল্লার স্ত্রী মরজিনা বেগম (৫০) তার বিবাহিত মেয়ে সিমা বেগম, ও ছেলে মান্না ঠেকাতে আসলে তাদেরও লোহার রড,শাবল দিয়ে এলোপাতাড়ি মারধর আরম্ভ করে। এসময় বদিয়ার মোল্লার স্ত্রী মরজিনা বেগম মার খেয়ে আঘাতপ্রাপ্ত হয়ে রক্তাক্ত অবস্থায় মাটিতে লুটিয়ে পড়ে।
এবং তার মেয়ে সিমা বেগম ও ছলে মান্নাও আঘাত প্রাপ্ত হয়ে মাটিতে লুটিয়ে পড়ে।এসময় সন্ত্রাসী বাহিনী সাইফুর, নাজির,হাসমত,লাদেন,সহ সকলে মিলে দোকান ঘর ও বাড়ির টিনের বেড়ায় রামদা দিয়ে কুপিয়ে ভেঙ্গে চুরে তছনছ করে ফেলে।
সংবাদ শুলে লোহাগড়া থালা পুলিশের বিট পুলিশ অফিসার ও রোম চেয়ারম্যান ঘটনা স্থলে ছুটে যান। এবং পরিস্থিতি শান্ত করতে আহতদের বিচার পাইয়ে দেওয়ার আশ্বস্ত করেন। পরে সাংবাদিকরা ঘটনা স্থলে গিয়ে অভিযুক্ত সাইফুর,ও নাজির কে ফোন দিয়ে বিসয়টি জানতে চাইলে তাদের ফোন বন্ধ পাওয়া যায়। তবে আহতরা মামলার প্রস্তুতি নিচ্ছেন বলে জানা গেছে।