দ্রব্যমূল্যের দাম কমানোর দাবিতে টিইউসির আহবাণে রাজপথে শ্রমিকেরা

জাহাঙ্গীর আলম চট্টগ্রাম: নিম্ন আয়ের জনগন তথা শ্রমিক শ্রেণীর নিত্য ব্যবহার্য পণ্যের মূল্য কমানো ও সাম্প্রদায়িক শক্তিকে কঠোর হস্তে দমনের দাবিতে টিইউসি চট্টগ্রাম জেলা কমিটির উদ্যোগে ২৪ নভেম্বর বুধবার সকাল ১০টায় চট্টগ্রাম প্রেস ক্লাব চত্বরে এক বিরাট মানববন্ধন ও বিক্ষোভ মিছিল অনুষ্ঠিত হয়।
প্রবীন শ্রমিক নেতা টিইইউসি চট্টগ্রাম জেলা কমিটির সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা তপন দত্ত সভাপতির বক্তব্যে বলেন, করোনার অভিঘাতে দেশের অধিকাংশ মানুষ অর্থনীতির প্রান্তিক পর্যায়ে চলে গেছে। কর্ম সংস্থান হারিয়ে দেশের কয়েক কোটি মানুষ বেকার হয়েছে। করোনার প্রাদুর্ভাব কমার পরে দেশের দরিদ্র শ্রমজীবী মানুষ যখন ঘুরে দাঁড়ানোর চেষ্টা করছে তখন সরকার ডিজেল, গ্যাস সহ নিত্য ব্যবহার্য পণ্যের মূল্য বৃদ্ধি করে শ্রমজীবী মানুষের জীবন দুর্বিষহ করে তুলেছে। মানুষের অসন্তোষ এবং ধর্মকে পুঁজি করে সাম্প্রদায়িক শক্তি দেশে অস্থিরতা সৃষ্টির প্রয়াস অব্যাহত রেখেছে।
সমাবেশে প্রধান অতিথি টিইউসি কেন্দ্রীয় কমিটির সহসভাপতি ও ইমারত নির্মান শ্রমিক ইউনিয়ন বাংলাদেশ – ইনসাবের সাধারণ সম্পাদক আব্দুর রাজ্জাক কঠোর হস্তে সাম্প্রদায়িক শক্তি দমন ও দ্রব্য মূল্য কমিয়ে দেশে সুস্থিতি ফিরিয়ে আনার দাবি জানিয়ে বলেন, দেশের সম্পদ হননকারী ব্যাংক লুটেরাদের কঠোর হস্তে দমন করতে হবে। তিনি স্বাধীনতার মর্মবাণী ও বংবন্ধুর আদর্শের বৈষম্যহীন সমাজ গড়ে সম্পদের সুষম বন্টনের দাবী জানান এবং সেই লক্ষে তিনি  দেশের সাড়ে ৬ কোটি শ্রমজীবী মানুষ ও কৃষকদের ঐক্যবদ্ধভাবে এগিয়ে আসার আহ্বান জানান।
মানববন্ধন শেষে এক বিরাট লাল পতাকা মিছিল প্রেস ক্লাব থেকে শুরু করে নিউ মার্কেট হয়ে পুরাতন রেল স্টেশনে শেষ হয়।
সভায় জাতীয় নিম্নতম মজুরি মাসিক ২০ হাজার টাকা ঘোষণা, কমিনিটি সেন্টার ও ডেকোরেটার্স শ্রমিকদের ৮ দফা দাবি সহ দৈনিক ৭০০টাকা মজুরি, রেশন বাসস্থানের দাবি সহ নির্মাণ শ্রমিকদের ১২ দফা, বেসরকারী স্বাস্থ্য শ্রমিকদের মজুরি বোর্ড গঠন করে মাসিক ১৬ হাজার টাকা নিম্নতম মজুরি ধার্য করা, হোটেল এন্ড রেস্টুরেন্ট শ্রমিকদের নিয়োগপত্র-পরিচয়পত্র ও শ্রম আইন অনুযায়ী সকল সবেতন ছুটি প্রদান, , চা শ্রমিকদের দৈনিক মজুরি ৩ শত টাকা ধার্য ও চুক্তি অনুযায়ী রেশনের চাল প্রদানের দাবি জানানো হয়।
সভায় অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন, টিইউসি চট্টগ্রাম জেলা কমিটির যুগ্ম সম্পাদক ইফতেখার কামাল খান, টিইউসি কেন্দ্রিয় সদস্য আলী হোসেন, মীর মোহাম্মদ ইলিয়াস, পোশাক শ্রমিক ট্রেড ইউনিয়ন ফেডারেশনের উপদেষ্টা সুকান্ত দত্ত, বেসরকারী স্বাস্থ্য কর্মচারী ইউনিয়নের সভাপতি বিকাশ চন্দ্র বসু ও সাধারণ সম্পাদক আব্দুর রহিম, কমিউনিটি সেন্টার ও ডেকোরেটার্স  শ্রমিক নেতা সিরাজ মিয়া, মোহাম্মদ পারভেজ, ইনসাব চট্টগ্রাম জেলা কমিটির সভাপতি শহিদুর রহমান, আইয়ুব হোসেন,  রেল শ্রমিক ইউইয়ন নেতা আবু বকর, পোশাক শ্রমিক ট্রেড ইউনিয়ন ফেডারেশনের নেতা আব্দুল ওয়াদুদ জীবন, হোটেল এন্ড রেস্টুরেন্ট শ্রমিক ইউনিয়ন নেতা মো হানিফ,  চা শ্রমিক নেতা প্রদীপ দাশ প্রমূখ।