দীর্ঘ প্রতীক্ষিত সিরিজ দিয়ে পাকিস্তান-ইংল্যান্ডের বিশ্বকাপ প্রস্তুতি শুরু

  • স্পোর্টস ডেস্ক:

    আগামী মাসে অস্ট্রেলিয়ায় অনুষ্ঠিতব্য টি-টোয়েন্টি  বিশ্বকাপ মাথায় রেখে আগামীকাল মঙ্গলবার করাচিতে সাত ম্যাচের সিরিজ শুরু করছে স্বাগতিক পাকিস্তান  ও সফরকারী ইংল্যান্ড। সর্বশেষ ২০০৫ সালে পাকিস্তান সফর করেছিল ইংলিশরা।
    ইংল্যান্ড দলের চলতি সফরটি কোন প্রকার ঝামেলামুক্ত করতে পারলে পাকিস্তানের মাটিতে আন্তর্জাতিক  ক্রিকেট পুরোদমে ফিরবে বলে আশা করা হচ্ছে।
    ২০০৯ সালে লাহোরে শ্রীলংকা দলবহনকারী বাসে সন্ত্রাসী হামলার পর বিদেশী দলগুলো সফরে অস্বীকৃতি জানালে পাকিস্তান তাদের হোম ম্যাচগুলো নিরপেক্ষ ভেন্যুতে খেলতে বাধ্য হয়। তবে শেষ কয়েক বছর যাবত ধীরে ধীরে পাকিস্তানের মাটিতে আবারও ফিরছে আন্তর্জাতিক ক্রিকেট।
    গত বছর অক্টোবর মাসে ইংল্যান্ড দলের পাকিস্তান সফরের কথা ছিল। তবে নিরাপত্তা শংকায় সফররত  নিউজিল্যান্ড দল সিরিজ শুরুর আগ মুহূর্তে দেশে ফিরে যাওয়ার পর ইংল্যান্ড তাদের নির্ধারিত সফরটি বাতিল করে।
    পাকিস্তান সফর নিরাপদ- পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ড (পিসিবি) কর্তৃক বার বার এমন দাবী করা হলেও  ইংল্যান্ডের সফর বাতিল করাকে ‘অসম্মানজনক’ মনে করে  পিসিবি।
    নিউজিল্যান্ড ফিরে যাওয়ার পর আগামী ডিসেম্বরে আবারও টেস্ট সিরিজ খেলতে পাকিস্তান সফরের কথা রয়েছে ওয়ানডে বিশ্ব চ্যাম্পিয়ন ইংল্যান্ড দলের।
    সম্প্রতি ওয়েস্ট ইন্ডিজ (৩-২), দক্ষিণ আফ্রিকা (২-১) ভারতের কাছে(২-১) ব্যবধানে টি-টোয়েন্টি  সিরিজ হারার পর আগামীকাল শুরু হওয়া সিরিজ দিয়ে ঘুড়ে দাঁড়াতে চায় সফরকারী ইংল্যান্ড  দল।
    এদিকে গত সপ্তাহে সংযুক্ত আরব আমিরাতে এশিয়া কাপ ফাইনালে শ্রীলংকার পরাজিত হওয়ার পর ঘুড়ে দাঁড়াতে চায় স্বাগতিক পাকিস্তানও।