উন্নয়ন প্রকল্পে জেলা প্রশাসকদের নজরদারি চান প্রধানমন্ত্রী

নিজস্ব প্রতিবেদক: দেশের সার্বিক উন্নয়নে জেলা প্রশাসকদের কাজ করার আহ্বান জানিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। তিনি বলেন, ‘বিভিন্ন মন্ত্রণালয় প্রকল্প গ্রহণ করে এবং সেই প্রকল্পগুলো বিভিন্ন এলাকায় বাস্তবায়ন হয়। কিন্তু এই প্রকল্পগুলো যথাযথভাবে গ্রহণ করা এবং তার প্রয়োজনীয়তা স্বাপেক্ষে সেগুলোতে বাস্তবায়নে কোন অনিয়ম হচ্ছে কি না? বা কোনো দুর্নীতি হচ্ছে কি না বা মানসম্মত হচ্ছে কি না সে বিষয়ের উপর নজরদারির ব্যবস্থা অবশ্যই নিতে হবে।’

মঙ্গলবার (১৮ জানুয়ারি) সকালে জেলা প্রশাসক সম্মেলন-২০২২ এর উদ্বোধন অনুষ্ঠানে ভার্চুয়ালি যুক্ত হয়ে জেলা প্রশাসকদের উদ্দেশে প্রধানমন্ত্রী একথা বলেন।

জেলা প্রশাসকদের উদ্দেশে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেন, ‘প্রকল্প নেওয়ার ক্ষেত্রে আমাদের সংসদ সদস্য, উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান, জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান এবং ইউনিয়ন পরিষদ সব জায়গায় নির্বাচিত প্রতিনিধিরা আছে। তাদের কিছু প্রতিশ্রুতি থাকে জনগণের কাছে সেই প্রতিশ্রুতিগুলোর বাস্তবায়ন। প্রতিশ্রুতিগুলো আসলে যথাযথ কি না সেটা বিবেচনা করে সেই ধরণের পরিকল্পনা নিতে হবে। তাতে করে দেশের সার্বিক উন্নয়নটা দ্রুত হবে।’

তিনি বলেন, ‘এখানে মন্ত্রী পরিষদ সচিবর আছেন প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের মুখ্য সচিব আছেন। আসলে দেখেছি যার যেখানে ইচ্ছে হয় সেখানে একটা প্রকল্প নিয়ে নিলো বা নিয়ে আসলো সেটা করা হয়। অনেক সময় সেটা হয়তো প্রয়োজনীয়তা নেই। অপ্রয়োজনীয় প্রকল্পগুলো পরিহার করতে হবে। প্রকল্প যেটা নিতে হবে সেটা যেন যথাযথ মানুষের সেবামূলক হয়, মানুষের অর্থনৈতিক কর্মকাণ্ডে অবদান রাখবে সেদিকে লক্ষ্য রেখেই প্রকল্প নিতে হবে। একটা কিছু করার জন্য করা সেটা যেন না হয়। সেদিকে বিশেষভাবে দৃষ্টি দিতে হবে।’

প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘জেলা উপজেলায় মাস্টার প্লান করে পরিকল্পিতভাবে কাজ করলে আর সমস্য থাকে না। ওয়ার্ড পর্যায়ে উন্নয়নে জেলা প্রশাসক বিরাট অবদান রাখতে পারে। তবে সেই ক্ষেত্রে জেলা পরিষদের নির্বাচিত জনপ্রতিনিধি বা অন্যান্য জনপ্রতিধি বা সংসদ সদস্য তাদেরকেও নিয়ে এক সঙ্গে বসে যদি আলোচনা করে কাজ করা যায় সেটা আরও বেশি কার্যকর হবে। বিভিন্ন মন্ত্রণালয় থেকে যে কাজগুলো যায় মন্ত্রণালয় মনিটর করবে সেটা ঠিক আছে, কিন্তু স্থানীয়ভাবে মনিটরের ব্যবস্থা করা এবং এর সামঞ্জস্য রক্ষা ও মানসম্মত যাতে হয় অবশ্যই সেটা দেখতে হবে।’